Tuesday, February 27, 2024
Homeদেশ-জুড়েহবিগঞ্জের চারটি আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলেন যারা 

হবিগঞ্জের চারটি আসনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলেন যারা 

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি:
দ্বাদশ জাতীয় সংসদ  নির্বাচনের ভোট গ্রহন সম্পন্ন হয়েছে।   বড় ধরনের কোন প্রতিবন্ধকতা ছাড়াই ভোট গ্রহনের মাধ্যমে হবিগঞ্জে ৪ জন নির্বাচিত হয়েছেন সংসদ সদস্য।
জানা যায়,  হবিগঞ্জ-৩ (হবিগঞ্জ সদর-শায়েস্তাগঞ্জ-লাখাই) আসনে ১ লাখ ৬০ হাজার ৬ শ ৫  ভোট পেয়ে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছে আওয়ামী লীগ (নৌকা) মনোনীত প্রার্থী অ্যাডভোকেট মোঃ আবু জাহির। এ নিয়ে অ্যাডভোকেট মোঃ আবু জাহির টানা ৪ বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন। একই আসন থেকে প্রতিদ্বন্দিদ্বতা করে জামানত হারিয়েছেন অপর প্রার্থীরা।
জামানত হারানো প্রার্থীরা হলেন, ‘জাতীয় পার্টির আব্দুল মুমিন চৌধুরী বুলবুল (লাঙ্গল), বিএনএম এর মোঃ বদরুল আলম সিদ্দিকী (নোঙর), বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশনের মোঃ আদম আলী (ফুলের মালা), ন্যাশনাল পিপলস পার্টির মোঃ আব্দুল কাদির (আম), জাকের পার্টির আনসারুল হক (গোলাপ ফুল), ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের মোঃ আব্দুল ওয়াহেদ (চেয়ার), বাংলাদেশ কংগ্রেসের মোঃ নোমান হাসান (ডাব) ও মুক্তিজোটের (জেডিপি) মোঃ শাহিনুর রহমান (ছড়ি)।
তবে চমকপ্রদভাবে হবিগঞ্জ-৪ (মাধবপুর-চুনারুঘাট) আসনে বেসরকারিভাবে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন।  সুমন ঈগল প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ১ লাখ ৬৯ হাজার ৯৬ ভোট অপরদিকে, নৌকা প্রতীকের প্রার্থী বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী অ্যাডভোকেট মাহবুব আলী পেয়েছেন ৬৯ হাজার ৫ শ ৪৩ ভোট।
তবে এই আসনে মাহবুব আলী ও সায়েদুল হক ছাড়াও অপর ছয় প্রার্থীরা হারিয়েছেন জামানত। জামানত হারানো প্রার্থীরা হলেন, আবু ছালেহ (ইসলামী ঐক্য জোট), আহাদ উদ্দিন চৌধুরী (জাতীয় পার্টি), মোহাম্মদ আবদুল মমিন (বাংলাদেশ কংগ্রেস), মোঃ মোখলেছুর রহমান (বিএনএম), মোঃ রাশেদুল ইসলাম খোকন (বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তি জোট), সৈয়দ মোঃ আল আমিন (বাংলাদেশ কংগ্রেস)।
হবিগঞ্জ-২ আসনে নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত হয়েছেন অ্যাডভোকেট ময়েজ উদ্দিন শরীফ রুয়েল। রোববার সন্ধ্যায় আসনটির বেসরকারি ফলাফল ঘোষণা করেন সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা। এতে দেখা যায়, অ্যাডভোকেট ময়েজ উদ্দিন শরীফ রুয়েল নৌকা প্রতীক নিয়ে ৯৯ হাজার ৯ শ ৪৩ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী
অ্যাডভোকেট আব্দুল মজিদ খান। তিনি ঈগল প্রতীকে পেয়েছেন ৪৯ হাজার ৬শ ৬ ভোট।
এ আসনের জামানত হারানো প্রার্থীরা হলেন, ‘কৃষক শ্রমিক জনতা লীগ মনোনীত প্রার্থী মনমোহন দেবনাথ, ইসলাশী ঐক্যজোটের শেখ হিফজুর রহমান, জাতীয়তাবাদী আন্দোলন বিএনএম এর সোহাগ, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের মোহাম্মদ আব্দুল হামিদ, তৃণমূল বিএনপির খায়রুল আলম এবং বাংলাদেশ কংগ্রেসের জিয়াউর রশীদ।
হবিগঞ্জ-১ (নবীগঞ্জ-বাহুবল) আওয়ামী লীগের সাবেক সংরক্ষিত নারী এমপি অ্যাডভোকেট আমাতুল কিবরিয়া কেয়া চৌধুরী (ঈগল প্রতীক)নিয়ে ৭৫ হাজার ৫২ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী জাতীয়পার্টি মনোনীত ও আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী সাবেক এমপি এমএ মুনিম চৌধুরী বাবু লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে ৩০ হাজার ৭ শত ৩ ভোট পেয়েছেন। অপর প্রার্থী ইসলামী ঐক্যজোট বাংলাদেশের আবু ছালেহ (মিনার) ৩১৭ ভোট, স্বতন্ত্র প্রার্থী গাজী মোহাম্মদ শাহেদ নির্বাচন থেকে সরে দাড়ানোর ঘোষণা দিলেও তিনি পেয়েছেন ৩১৯ ভোট, কৃষক শ্রমিক জনতালীগ প্রার্থী অ্যাডভোকেট নুরুল হক গামছা প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ২১৩ ভোট।
রবিবার রাতে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাও সহকারী রির্টানিং অফিসার অনুপম দাস অনুপ উপজেলার ১১৬টি কেন্দ্রের ফলাফল আনুষ্টানিক ভাবে ঘোষনা করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট আমাতুল কিবরিয়া কেয়া চৌধুরী, সহকারী কমিশনার ভুমি মোঃ শাহিন দেলোয়ার, নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ সাইদুর রহমানসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।
হবিগঞ্জ-১ আসনে জামানত হারিয়েছেন ৩ প্রার্থী। এরা হলেন, ‘গাজী মোহাম্মদ শাহেদ, ইসলামী ঐক্যজোটের মোস্তাক আহসেদ ফারকানী এবং কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের অ্যাডভোকেট নুরুল হক।
RELATED ARTICLES
Continue to the category

Most Popular